সোমবার, ১৭-মে ২০২১, ০৭:২৪ পূর্বাহ্ন
  • জেলা সংবাদ
  • »
  • কোম্পানীগঞ্জে রক্তের হোলি খেলা চলবে: কাদের মির্জা

কোম্পানীগঞ্জে রক্তের হোলি খেলা চলবে: কাদের মির্জা

shershanews24.com

প্রকাশ : ২০ এপ্রিল, ২০২১ ০৬:০২ অপরাহ্ন

শীর্ষনিউজ, নোয়াখালী: নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জা বলেন, শামীমের (নোয়াখালীর অ্যাডিশনাল এসপি) মতো কুলাঙ্গার আমার গায়ে হাত দেয়। কোম্পানীগঞ্জে কুলাঙ্গার ওসি রনি আমার গায়ে হাত দেয়। আমার ছেলেদেরকে যদি ক্রসফায়ারে দেওয়া হয়, তবে কোম্পানীগঞ্জে রক্তের হোলি খেলা চলবে। 

মঙ্গলবার দুপুরে বসুরহাট পৌরসভা তার নিজ কার্যালয় থেকে তার অনুসারী স্বপন মাহমুদের ফেসবুক থেকে লাইভে এসে এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, অপরাজনীতির হোতারা এখন আওয়ামী লীগ নিয়ন্ত্রণ করছে। ক্ষমতায় থাকার জন্য আওয়ামী লীগ হেফাজত ইসলামের মতো দলের সঙ্গে ঘর সংসার করছে, এদেরকে নিয়ে রাষ্ট্রও পরিচালনা করছে। ক্ষমতা এখন আমাদের কাছে এত বড়, সব আদর্শ বিসর্জন দিয়ে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ থেকে বিচ্যুত হয়ে গেছে। আওয়ামী লীগ এখন পথহারা আওয়ামী লীগ। আওয়ামী লীগ এখন অপশক্তি বেষ্টিত আওয়ামী লীগ। এ আওয়ামীলীগ এখন অস্ত্রবাজ, টেন্ডারবাজ, চাকুরী বাণিজ্যবাজদের আওয়ামী লীগে পরিণত হয়েছে। আমাদের মতো ৪৭ বছর যাবত আওয়ামী লীগ করা কেউ, শুধু এখানে নয়, বাংলাদেশে কোথাও আওয়ামী লীগের সঙ্গে নেই।

কাদের মির্জা বলেন, সড়ক ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সচিব বেলায়েত সেতুমন্ত্রীর স্ত্রীর (এড. ইসরাতুন্নেছা কাদের) আত্মীয়। তিনিই নোয়াখালীর প্রশাসন নিয়ন্ত্রণ করছেন। সেতুমন্ত্রীর (ওবায়দুল কাদের) স্ত্রী (অ্যাড. ইসরাতুন্নেছা কাদের) দেশে-বিদেশে কোথায় কত সম্পদ আছে, বাড়ী-গাড়ী আছে এর সব হিসাব আমার কাছে আছে। এ হিসেব যথাসময়ে, যথাস্থানে পৌঁছাব। 

তিনি অভিযোগ করেন, নোয়াখালীর ডিসি ছাত্রজীবনে ছাত্রশিবির করতো, এর প্রমাণ আমার কাছে আছে। সে এমপি একরাম চৌধুরীর টাকা খেয়ে এখানে তাণ্ডব চালাচ্ছে। আমার গ্রেফতারকৃত লোকদের ছেড়ে দেয়ার কথা ছিল। কিন্তু নোয়াখালীর ডিসির নির্দেশে তা বন্ধ হয়ে যায়। পুলিশ আমার কর্মী নাজিম উদ্দিন মিকন ও নুর উদ্দিন খাজাকে ধরে নিয়ে এমন নির্যাতন করেছে যা ৭১’এ পাকহানাদার বাহিনীর নির্যাতনকেও হার মানায়। 

কাদের মির্জা তীব্র ক্ষোভ প্রকাশ দুপুর ২টায় পুনরায় লাইভে এসে বলেন, পুলিশ আমার গ্রেফতারকৃত কর্মী নাজিম উদ্দিন মিকনকে ক্রসফায়ারে দেবে বলে শুনছি। রাহাতের (তার ভাগ্নে ফখরুল ইসলাম রাহাত) টাকায় মিকনকে ক্রস ফায়ারে দেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। আমি ৪৭ বছর রাজনৈতিক অভিজ্ঞতায় অভিজ্ঞ। হত্যা বদলে হত্যা, এটা ছেড়ে দেয়া হবে না। ৪৭ বছরের রাজনৈতিক জীবনে পুলিশ আমার গায়ে হাত দেয়া তো দূরের কথা, আমার চোখের দিকে তাকিয়েও কথা বলেনি। 

আজ শামীমের (নোয়াখালীর অ্যাডিশনাল এসপি) মতো কুলাঙ্গার আমার গায়ে হাত দেয়। কোম্পানীগঞ্জে কুলাঙ্গার ওসি রনি আমার গায়ে হাত দেয়। আমার ছেলেদেরকে যদি ক্রস ফায়ারে দেয়া হয়, তবে কোম্পানীগঞ্জে রক্তের হোলি খেলা চলবে। 
শীর্ষনিউজ/এসএসআই